দেশজুড়ে

স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ, ধর্ষকের ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন


সি নিউজ, ফরিদপুর : ফরিদপুরের সদরপুর উপজেলার নয়রশি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চশ শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় জড়িত ধর্ষক মুক্তার শিকদারের ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে স্কুলের শিক্ষক-শিক্ষার্থী অভিভাবকরা

মঙ্গলবার দুপুরে সদরপুর উপজেলা পরিষদ চত্বরে ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়। কর্মসূচিতে ধর্ষক মুক্তার শিকদারের ফাঁসির দাবি করেন নির্যাতিত স্কুলছাত্রীর সহপাঠীরা

সময় বক্তব্য রাখেন- উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জিনিয়া নাজনীন কল্পনা, সদরপুর ইউপি চেয়ারম্যান মো. শহিদুল ইসলাম বাবুল, সহকারী উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মো. ওয়াহিদ খান, তপন কুমার সরকার, নয়রশি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা ফরিদা পারভীন, সহকারী শিক্ষক আবুল কাশেম মুন্সী ইউপি সদস্য মো. মজিবুর রহমান তালুকদার প্রমুখ

সদরপুর সদর ইউপির চেয়ারম্যান মো. শহিদুল ইসলাম বাবুল বলেন, একটি শিশুকে ধর্ষণ করা হয়েছে। মানুষ নামের এই নরপশুর সর্বোচ্চ শাস্তি হিসেবে ফাঁসি চাই। তার বিচার দেখে আর যেন অন্য কেউ এরকম কাজ না করতে পারে

মানববন্ধন শেষে ধর্ষকের ফাঁসির দাবিতে ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা ফরিদা পারভীনসহ নেতৃবৃন্দ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কামরুন নাহার, শিক্ষা কর্মকর্তা ওয়াহিদ খান সদরপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সুব্রত গোলদারের কাছে স্মারকলিপি দেন

সদরপুর থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) সুব্রত গোলদার বলেন, ধর্ষক মুক্তার শিকদারকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। অপরাধীর সর্বোচ্চ শাস্তির জন্য আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে

প্রসঙ্গত, গত ১৪ জুলাই দুপুরে সদরপুর ইউনিয়নের চৌদ্দরশি গ্রামের মর্তুজা শিকদারের ছেলে মুক্তার শিকদার নয়রশি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণ করে। শিশুটিকে সদরপুর হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে পাঠায়

বর্তমানে ফরিদপুরের সেফ হোমে রয়েছে শিশুটি। ঘটনায় শিশুটির বাবা বাদী হয়ে ওই রাতেই সদরপুর থানায় মামলা দায়ের করলে ধর্ষক মুক্তার শিকদারকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে পাঠায় পুলিশ

সিনিউজ ডেস্ক

0 Comments

Please login to start comments