দেশজুড়ে

রেনুকে পিটিয়ে হত্যা: দুই আসামির রিমান্ড আবেদন


সি নিউজ ডেস্ক : রাজধানীর বাড্ডায় তাসনিমা বেগম রেনুকে গণপিটুনিতে হত্যায় সরাসরি জড়িত আবুল কালাম আজাদ ও কামাল উদ্দিনকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ। তাদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিন করে রিমান্ড আবেদন করা হয়েছে। 

সোমবার রাতে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। এর আগে রেনু হত্যা মামলায় শাহীন, বাচ্চু মিয়া ও বাপ্পী নামের তিন ব্যবসায়ীকে ৪ দিন করে রিমান্ডে নেয় পুলিশ। এরই মধ্যে হত্যায় জড়িত বলে আদালতে স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দী দিয়েছেন অভিযুক্ত আরেক ব্যবসায়ী জাফর হোসেন।

বাড্ডার একটি স্কুলের ভেতর নৃশংসভাবে রেনুকে পিটিয়ে হত্যা ঘটনায় নেতৃত্ব দেয়া এক যুবকের নাম হৃদয়। ওই হত্যাকাণ্ডের ভিডিও ফুটেজ ও তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় পুলিশ ও গোয়েন্দারা যে ৮ জনকে শনাক্ত করেছে, তাদের মধ্যে ৫ জনকে আটক করলেও হৃদয় এখনও ধরা ছোঁয়ার বাইরে।

তবে গ্রেপ্তার হওয়া ৫ জনের কাছ থেকে হৃদয়ের অবস্থান সম্পর্কে মোটামুটি ধারণা পেয়েছে পুলিশ। গোয়েন্দারা জানিয়েছে, পুলিশের চোখ ফাঁকি দিতে বারবার নিজের অবস্থান বদল করছে হৃদয়।

শনিবার সকালে সন্তানকে রাজধানীর উত্তর বাড্ডা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভর্তি করার জন্য স্কুলে খোঁজ নিতে গিয়ে গণপিটুনিতে প্রাণ হারান তাসলিমা বেগম রেনু।

 

Admin

0 Comments

Please login to start comments