জাতীয়

রাজীবের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা দেওয়ার নির্দেশ


সিনিউজ:  কারওয়ান বাজারে দুই বাসের রেষারেষিতে হাত হারানোর পর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কলেজছাত্র রাজিব হোসেনের মৃত্যুর ঘটনায় তার পরিবারকে আগামী এক মাসের মধ্যে ১০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে স্বজন পরিবহনকে নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ।

রোববার (১৩ অক্টোবর) স্বজন পরিবহনের এক আবেদনের শুনানিতে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বে চার বিচারকের আপিল বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের হাই কোর্ট বেঞ্চ গত ২০ জুন এক রায়ে বিআরটিসি ও স্বজন পরিবহনের বাসকে এ দুর্ঘটনার জন্য সমানভাবে দায়ী করে। দুই বাসের কর্তৃপক্ষকে ক্ষতিপূরণ হিসেবে ২৫ লাখ টাকা করে মোট ৫০ লাখ টাকা রাজীবের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দিতে বলা হয়। এরপর স্বজন পরিবহনের মালিকপক্ষ হাইকোর্টের রায় স্থগিতের আবেদন নিয়ে এলে রোববার তা আপিল বিভাগে শুনানির জন্য ওঠে।

এসময় আদালতে রাজীবের পক্ষে শুনানিতে উপস্থিত ছিলেন ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল আর স্বজন পরিবহনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী শফিকুল ইসলাম বাবুল। তবে বিআরটিসির পক্ষে এদিন কেউ শুনানিতে ছিলেন না।

প্রাথমিক বক্তব্য শুনে প্রধান বিচারপতি স্বজন পরিবহনের আইনজীবীকে বলেন, এক মাসের মধ্যে ১০ লাখ টাকা পরিশোধ করে আসেন। তারপর আমরা আপনাদের বাকি বক্তব্য শুনব।

গত বছরের ৩ এপ্রিল রাজধানীর কারওয়ান বাজারে পান্থকুঞ্জ পার্কের সামনে বিআরটিসি বাসের সঙ্গে স্বজন পরিবহনের বাস টক্কর দিতে গেলে বাস দু’টির চিপায় পড়ে ডান হাত বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় রাজিবের। সরকারি তিতুমীর কলেজের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের এ ছাত্রকে তাৎক্ষণিক নিকটস্থ হাসপাতালে ভর্তি করা হলেও পরদিন ঢামেকে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে সরকারের তত্ত্বাবধানে তার চিকিৎসা চলছিল। পরে ১৬ এপ্রিল রাতে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

সিনিউজ ডেস্ক

0 Comments

Please login to start comments