বিএনপি শুধু খোয়াব দেখবে, আন্দোলন আর হবে না: ওবায়দুল কাদের

বিএনপি শুধু খোয়াব দেখবে, আন্দোলন আর হবে না: ওবায়দুল কাদের

সি নিউজ : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি শুধু খোয়াব দেখবে, আন্দোলন আর হবে না
আজ সোমবার দুপুরে ঢাকার মানিক মিয়া অ্যাভিনিউয়ে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিদর্শনে গিয়ে ওবায়দুল কাদের সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে মন্তব্য করেন।
মানুষ আন্দোলনের মুডে নয়, নির্বাচনের মুডে আছে মন্তব্য করে ওবায়দুল কাদের বলেন, বাংলাদেশের মানুষ এখন পুরোপুরি নির্বাচনের আমেজে (মুডে) দুটি সিটি করপোরেশনে নির্বাচন হচ্ছে। মানে দুই বিভাগের ভোটাররা এর সঙ্গে জড়িয়ে গেছেন। এরপরে আরও পাঁচটি সিটি করপোরেশন নির্বাচন, সেমিফাইনাল চলছে (নির্বাচনের)—এখন আর আন্দোলনে কাজ হবে না।
জোটসঙ্গী জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের মন্তব্যের বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে সেতুমন্ত্রী বলেন, কে কত আসন পাবে, সেটি বৈঠকে আলাপ-আলোচনা হবে। এসব বিষয় প্রকাশ্যে না বলাই ভালো। জোটের শরিক বলে ইচ্ছামতো আসন চাইবে, এটা হতে পারে না। যেখানে যেখানে জাতীয় পার্টির প্রার্থীরা জয়ী হওয়ার মতো থাকবেন, সেখানে অবশ্যই মনোনয়ন পাবেন। ছাড়া আওয়ামী লীগসহ জোটের সবার ক্ষেত্রে জয়ী হওয়ার মতো প্রার্থী ছাড়া কাউকে মনোনয়ন দেওয়া হবে না।
আগামী নির্বাচনে জাতীয় পার্টির সঙ্গে জোট থাকবে কি না, এই প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘জোট হবে কি না, সেটি এই মুহূর্তে বলতে পারছি না। বসাবসি শুরু হয়ে যাবে। জেতার মতো প্রার্থীকে মনোনয়ন দেওয়া হবে।সরকার গঠনের সময় মন্ত্রী দেওয়ানা দেওয়া নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সিদ্ধান্ত দেবেন বলেও জানান ওবায়দুল কাদের।
ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিদর্শনের সময় মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের রাস্তায় দাঁড়িয়ে বাস, সিএনজিচালিত অটোরিকশা এবং মোটরসাইকেল থামিয়ে চালক যাত্রীদের সঙ্গে কথা বলেন। সময় বিকাশ পরিবহন নামের একটি বাসের যাত্রীরা মন্ত্রীর কাছে বাড়তি ভাড়া নেওয়ার অভিযোগ করেন। যাত্রীরা বলেন, বাসটি সরকারনির্ধারিত ৩২ টাকার ভাড়া নিচ্ছে ৫০ টাকা। সময় মন্ত্রী বাসটি আটকের জন্য বিআরটিএর লোকজনকে নির্দেশ দেন। যদিও যাত্রী থাকার কারণে বাসটি ছেড়ে দেওয়া হয়। বাসের নম্বরের সাহায্যে বিআরটিএ পরবর্তী সময়ে বাসমালিকের সঙ্গে যোগাযোগ করবে বলেও ওবায়দুল কাদের জানান