বাগেরহাটে কুকুরের কামড়ে আহত ৩০

বাগেরহাটে কুকুরের কামড়ে আহত ৩০

সি নিউজ, বাগেরহাট : বাগেরহাট সদরে এক পাগলা কুকুরের কামড়ে নারী-শিশুসহ অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছেন। এলাকাবাসী কুকুরটিকে মেরে ফেলেছে।
আহতরা বাগেরহাট সদর উপজেলার কাড়াপাড়া ও মির্জাপুর গ্রামের বাসিন্দা। গতকাল বিকালে ও আজ বৃহস্পতিবার সকালে এরা আক্রান্ত হন।
আহতদের মধ্যে ১২ জনকে বাগেরহাট সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এরা হলেন, আনিস হাওলাদার (১০), সুমন শেখ (১০), তাওহিদুল ইসলাম (১৩), সোভিক দে (১৪), মিরাজুন্নাহার লুসি (৩৮), ময়না বেগম (৬০), সাইদ শেখ (৩৫), আনোয়ারা বেগম (৩০), জাইমা বেগম (৬০), মো. আলী শেখ (৪৫), হালিমা বেগম (৫৫) ও সবিতা পাল (৪৫)।
এদিকে হাসপাতালে ভ্যাকসিন না থাকায় ভোগান্তিতে পড়ছেন রোগীরা। চিকিৎসাধীন হালিমা বেগম বলেন, ‘হাসপাতালে ভর্তি হয়েছি কিন্তু এখানে ভ্যাকসিন নেই। খুব কষ্ট করে বাইরে থেকে ভ্যাকসিনের ব্যবস্থা করেছে আমার ছেলে।’
কুকুরের কামড়ে গুরুতর আহত মো. আলী শেখ বলেন, ‘আমি রা¯Íা দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলাম। হঠাৎ পেছন থেকে কুকুরটি আমার পাছা কামড়িয়ে ঝুলে থাকে। অনেক কষ্টে কুকুরটিকে ছাড়াই।’
সবিতা পাল বললেন ‘আমি বাড়ি থেকে বের হতেই কুকুরটি দৌড়ে এসে আমার হাত কামড়িয়ে ধরে।’
বেলাল নামে একজন গ্রামবাসী বলেন, ‘কুকুরটি আমার খালাসহ অন্তত ৩০ জনকে কামড়িয়েছে। আজ ১১টার দিকে এলাকাবাসী সবাই মিলে কুকুরটিকে পিটিয়ে মেরে ফেলি।’
বাগেরহাট সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার (আরএমও) ডা. মোশারফ হোসেন বলেন, ‘কুকুরের কামড়ে যারা ভর্তি হয়েছেন তাদেরকে আমরা চিকিৎসা দিচ্ছি। যারা অল্প আহত হয়েছে তাদের জন্য সব ওষুধ আমরা সরবরাহ করছি। তবে যেসব রোগীর ক্ষত অধিকতর, তাদের জন্য আরআইজি নামে একটি ভ্যাকসিন দিতে হয়। যেটা আমাদের এখানে নেই।’