জাতীয়

অনুমোদন দেয়া রাজউক কর্মকর্তাদের খুঁজছেন গণপূর্তমন্ত্রী


সি নিউজ ডেস্ক : গৃহায়ণ ও গণপূর্তমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, এফআর টাওয়ারের নকশা ও ভবন নির্মাণের অনুমোদন দেয়া রাজউক চেয়ারম্যান এবং দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের খোঁজ চলছে।

শুক্রবার (২৯ মার্চ) সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ বথা বলেন।মন্ত্রী বলেন, যেসব প্রকৌশলী এই ভবন নির্মাণের সঙ্গে জড়িত তাদের লাইসেন্স বাতিল করা হবে। তাদের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা করা হবে এবং প্রয়োজনে এই ইমারত ভেঙে ফেলা হবে।

তিনি আরো বলেন, নকশা অনুমোদনের সময় কোনো ব্যত্যয় ঘটেছে কিনা ও মূল নকশা ছাড়া এটা তৈরি হয়েছে কিনা, হয়ে থাকলে এর সঙ্গে কারা কারা জড়িত, সবার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। যারা এই ঘটনায় জড়িত সেই নরপিশাচদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

মন্ত্রী বলেন, অপরাধী যত শক্তিশালীই হোক না কেন তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। প্রয়োজন হলে প্রতিষ্ঠানের মালিকের লাইসেন্স বাতিল এবং অতিরিক্ত অংশ ভেঙ্গে ফেলা হবে।

এর আগে বনানীতে আগুনে পুড়ে যাওয়া এফ আর টাওয়ারের ভেতরে আহত বা মৃত আরো কেউ আছে কিনা জানতে সকাল থেকে তল্লাশি  করে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা।এই ভবনের তিনটি লিফট আছে, বন্ধ থাকলে ভেঙে দেখা হবে ভেতরে কেউ আছে কিনা। এরপরই নিহতের সংখ্যা জানা যাবে বলে জানিয়েছে ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তারা।

ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের সাথে কাজ করছে সিআইডির ক্রাইম সেক্টরের একটি টিম। তারা বলেছে, যে লাশগুলো শনাক্ত করা যাবে না, তাদের আলামত সংগ্রহ করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

এর আগে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৪ জনের মরদেহ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করেছে কর্তৃপক্ষ।শুক্রবার সকাল থেকে মরদেহ হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলে।  মরদেহগুলোর  পরিচয় পাওয়া যায়নি, তাদের ডিএনএ শনাক্ত করণে সিআইডির ক্রাইম টিম কাজ করছে।

Admin

0 Comments

Please login to start comments